ঢাকায় পৌঁছেছেন সিঙ্গাপুরের বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকরা, বিদেশে নিতে অনাগ্রহী পরিবার

এখনও সঙ্কটাপন্ন আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদেরের অবস্থা। তাকে দেখতে হাসপাতালে গেছেন রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রী। সবশেষ ব্রিফিংয়ে বিএসএমএমইউ’র চিকিৎসকরা জানিয়েছেন, ওবায়দুল কাদেরের শারিরীকি অবস্থা অল্প কিছুটা উন্নতি হলেও তিনি শঙ্কামুক্ত নন।

তার হার্টে তিনটি ব্লক রয়েছে। এদিকে তাঁর চিকিৎসায় সহায়তা দিতে এয়ার এম্বুলেন্সে করে ঢাকায় এসে পৌঁছেছেন সিঙ্গাপুরের ৩ জন বিশেষজ্ঞ চিকিৎসক।

এদিকে ওবায়দুল কাদেরের পরিবার চিকিৎসার জন্য তাকে বিদেশে নেয়ার ক্ষেত্রে অনাগ্রহী বলে জানা গেছে। রোববার ফজরের নামাজের সময় বুকে প্রচন্ড ব্যাথা অনুভব করেন আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের।

দ্রুত তাকে ভর্তি করা হয় বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ে। হাসপাতালে আনা মাত্রই দ্রুত শুরু হয় চিকিৎসা। এনজিওগ্রাম করা হলে হার্টে তিনটি ব্লক ধড়া পড়ে।

প্রিয় নেতার অসুস্থতার খবর পেয়ে হাসপাতালে ছুটে আসেন দলের সকল পর্যায়ের নেতাকর্মীরা।সকাল দশটার কিছু পর ওবায়দুল কাদেরের শারীরিক অবস্থা নিয়ে গণমাধ্যমের সাথে কথা বলেন আওয়ামী লীগ নেতারা।

উন্নত চিকিৎসার জন্য সড়ক পরিবহন মন্ত্রীকে সিঙ্গাপুরে নেয়ার সিদ্ধান্ত হলেও দুপুরের পর স্থগিত করা হয়। হৃদস্পন্দন কমে যাওয়ায় আপাতত তাকে বিদেশে পাঠানো সম্ভব নয় বলে জানান চিকিৎসক সৈয়দ আলী আহসান।

দলের সাধারণ সম্পাদকের অসুস্থতার খবর শুনে সকাল থেকেই খোঁজ খবর নিতে থাকেন আওয়ামী লীগ সভাপতি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। দুপুর সাড়ে তিনটার পর তাকে দেখতে আসেন হাসপাতালে। সেখানে প্রায় পৌনে একঘন্টা অবস্থান করেন তিনি।

বিকেলে ওবায়দুল কাদেরকে দেখতে আসেন রাষ্ট্রপতি আব্দুল হামিদ। তিনিও প্রায় ত্রিশ মিনিট অবস্থান করেন হাসপাতালে। খোজ নেন তার শারীরিক অবস্থার।

আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদকের অসুস্থতা নিয়ে বিকেলে সবশেষ ব্রিফ করে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ। জানানো হয় এখনও সঙ্কাটাপন্ন তার অবস্থা।

আপনি দেখেছেন কি?

মহাজোটের আসন ভাগাভাগি চূড়ান্ত

আসন্ন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে মহাজোটের শরিকদের আসন নিশ্চিত করে চিঠি দিতে শুরু করছে আওয়ামী …

Optimization WordPress Plugins & Solutions by W3 EDGE