fbpx

‘রেসপেক্ট’ : রিকশাচালক অসুস্থ! তাই …

দুই বন্ধু রিকশায় চড়ে পরিবাগ যাচ্ছিলেন। পথিমথ্যে হঠাৎ রিকশাচালক অসুস্থবোধ করেন। তখন এক বন্ধু গিয়ে বসেন চালকের আসনে; আরেক বন্ধু রিকশাচালকে সিটে বসিয়ে ধরে রাখেন। এমন একটি ছবি আজ সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে ভাইরাল হয়েছে।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সমাজবিজ্ঞান বিভাগের ছাত্র, ছাত্রলীগের সাবেক জয়েন্ট সেক্রেটারি নওশেদ সুজন ছবিটি তার ফেসবুকে পোস্ট দিয়ে লিখেছেন, ‘আজ দুই বন্ধু পরিবাগ যাওয়ার সময় রিকশাচালক অসুস্থ হয়ে পরার কারণে নিজে রিকশা চালিয়ে গন্তব্যে!’

ছবিটি ফেসবুকে পোস্ট দেয়ার পরপরই সেটি ভাইরাল হয়ে যায়। অনেকেই নানা রকম মন্তব্য করছেন। কেউ বলছেন, ‘রেসপেক্ট!’, কেউ বলছেন ‘নিজের ঢোল নিজেই পিটায়!’

মামুন নাকিব লিখেছেন, ‘রেসপেক্ট’

আরিফুল ইসলাম হৃদয় লিখেছেন, ‘একেই বলে ছাত্রলীগ, ধন্যবাদ প্রিয় ভাইয়েরা’

শাম্মি আক্তার লিখেছেন, ‘ছাত্রলীগের বেশে আমি দুই দুটি ফেরেশতা দেখছি। কিন্তু ছবি যিনি তুলেছেন সেই ফেরেশতার নাম কি ভাই? উনাকেও একটু দেখতে মন চাচ্ছে। পৃথিবীতে স্বয়ং ফেরেশতা দেখার সৌভাগ্য আমার এই প্রথম হলো কিনা।’

নাজমুন নূর ইফতি লিখেছেন, ‘সবই বুঝলাম… বাট উনারা ইন্সটেন্ট ফটোগ্রাফার পাইলো কই বুঝলাম না…’

শামসুল ইসলাম সঞ্জু লিখেছেন, ‘নিজের ঢোল নিজেই পিটায়!’

সামি নামের একজন প্রশ্ন করেছেন, ‘রিকশাওয়ালা টা কি জীবিত আছে? জানতে চাই!’

অপু প্রধান লিখেছেন, ‘শো অফ বাদ দেন ভাই। ভাল কাজের প্রচার নিজে করতে হয় না, মানুষ করে।’

সৈয়দ মনসুর লিখেছেন, ‘মুজিব আদর্শের ছাত্রলীগ। আজ সমাজের উচ্চ শ্রেণির এবং সমাজ বিশ্লেষকেরা কালো চশমা পরেছেন, তাই আজ ছাত্রলীগ চিনতে কষ্ট হয়। প্রাউড অব ইউ ভাই।’

আবু হাসান রুমি লিখেছেন, ‘বন্ধু তো রিক্সায় বসে আছে, তাহলে ছবি তুলে দিলো কে?’

আপনি দেখেছেন কি?

‘ন্যূনতম ভদ্রতাটুকু দেখাতেও আপনাদের এত কুণ্ঠা কেন’

কেউ আপনাকে ব্যক্তিগত নম্বর দেয়া মানে হচ্ছে তিনি আপনাকে কাছের মনে করে অগ্রাধিকার দিচ্ছেন! সেই …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *